বিসিএস প্রিলি লজিক গেইট

বিসিএস প্রিলি লজিক গেইট
Content Protection by DMCA.com

লজিক গেইট টপকটি প্রিলির সিলেবাসের কম্পিউটার অংশে ইনক্লুড। বিসিএস প্রিলি এক্সামের জন্য খুবই ইমপর্টেন্ট একটি টপিক। পুরো টপিকটি বুঝতে হবে। একবার বুঝতে পারলে দ্বিতীয় বার আর পড়তে হবে না।

লজিক গেইট কি?
– লজিক গেইট আসলে একটি ইলেক্ট্রনিক ডিভাইস ( বুঝার সুবিধার্থে আপনার রুমের ফ্যান/বাতির সুইচের কথা কল্পনা করে নিন)। এটি সার্কিটে ইউজ করা হয়।বিভিন্ন রকমের ইনপুটের জন্য নিদিষ্ট কিছু আউটপুট পাওয়া যায় এতে।

ইনপুট কি/ আউটপুট কি?
– বুঝার সুবিধার জন্য লজিক গেইটে ৩টি অংশে বিভাজন করি।

ইনপুট জোনঃ এক বা একাধিক ইনপুট দেয়া হয়। ইনপুট গুলো দুধরনের। যে ইনপুট গুলোতে current flow হয়, ঐগুলোর ভ্যালু 1, আর যেগুলোতে কোন current flow নেই, ঐগুলোর ইনপুট ভ্যালু 0 ।

[ বুঝার সুবিধার্থে আপনার বাড়ির ফ্যান/ লাইটের সুইচ কল্পনা করুন। আপনি যখন সুইচ টিপেন তখন লাইট জ্বলে উঠে। সুইচ টিপা হচ্ছে ইনপুট, লাইট জ্বলে উঠা হচ্ছে আউটপুট।]

অপারেশন জোনঃ এই অংশে ইনপুট সিগন্যাল গুলোর লজিক্যাল অপারেশন সম্পূর্ণ হয়। বিভিন্ন গেইটের অপারেশন বিভিন্ন রকম। এই অপারেশন গুলোই এই পোস্টে আলোচনা করা হবে।

আউটপুট জোনঃ অপারেশন অনুযায়ী একটি আউটপুট সিগনাল পাওয়া যায়।লজিত গেইটে এক কিংবা একাধিক ইনপুটের জন্য কেবল একটি মাত্র আউটপুট পাওয়া যায়।আউটপুট দুই ধরনের হতে পারে 0 অথবা 1।

ট্রুথ টেবিল কি?
– ট্রুথ টেবিল বা সত্যক সারণি হচ্ছে কোন একটি গেইটের জন্য বিভিন্ন ইনপুটের জন্য কি আউটপুট পাওয়া যাবে তার একটি তালিকা।

বিসিএস প্রিলি লজিক গেইট

বিভিন্ন প্রকার লজিক গেইটঃ

1. মৌলিক গেইটঃ মৌলিক গেইট ৩ টি। OR gate, AND gate, NOT gate ।

2. Universal gate: এই গেইট গুলোর সাহায্য অন্য সব গেইট বানানো যায়। ইউনিভার্সাল গেইট ২টি । NAND gate, NOR gate ।

3. Exclusive gate: এছাড়া বিশেষ ধরনেই কিছু গেইট রয়েছে, যাদেরকে এক্সক্লুসিভ গেইট বলা হয় যেমনঃ X-OR gate, X-NOR gate

এবার বিভন্ন গেইট নিয়ে আলোচনা করিঃ

NOT gate: এই গেইটের ইনপুট একটি। আউটপুট একটি।ইনপুটে যে সিগনাল দেয়া হয়,আউটপুটে তা উল্টিয়ে দেয়। ইনপুটে যদি 0 হয়, আউটপুট 1 । ইনপুট যদি 1 হয়, আউটপুট 0 ।

OR gate: মনে করুণ আপনি ডাব খাবেন।ডাবের ভিতর শাঁস ও পানি আছে। এখন আপনি ডাবের শাস খেলেও ডাব খাওয়া হল। ডাবের পানি খেলেও ডাব খাওয়া হল। আবার ডাবের পানি ও শাস দুটো খেলেও ডাব খাওয়া হল। অর্থাৎ যখন একাধিক ইনপুটের মধ্যে কেবল একটি ইনপুট 1 হয়,তবে আউটপুট 1. আর যদি সবগুলো ইনপুট 1 হয়,তবেও আউটপুট 1 [বিস্তারিত ২ নম্বর ইমেজে দেখেন]

বিসিএস প্রিলি লজিক গেইট

AND gate: মনে করুণ, আপনি শরবত বানাবেন। আপনার কাছে চিনি,লেবু,পানি আছে। শরবত বানাতে হলে আপনাকে এই সবগুলো উপাদানই ইউজ করতে হবে।

AND gate এ যদি সবগুলো ইনপুটে current flow হয়, তবেই কেবল আউটপুটে current flow হবে।
অর্থাৎ, যদি সবগুলো ইনপুট 1 হয়,তবেই আউটপুট 1 যদি একটি ইনপুটও 0 হয়,আউটপুট 0 হবে। [বিস্তারিত ২ নম্বর ইমেজে দেখেন]

NOR gate: OR gate এর সাথে একটি NOT gate যুক্ত করে এই নর গেইট বানানো হয়। NOR gate = NOT of OR gate (অর্থাৎ OR gate এর আউটপুটকে NOT gate এ ইনপুট দেয়া) নট গেইট সিগনালকে উল্টিয়ে দেয়।তাই OR gate এ যে সিগনাল পাওয়া যায়,NOR gate এ তার বিপরীত সিগনাল পাওয়া যাবে। ট্রুথ টেবিল দেখে ক্লিয়ার হয়ে নেন।

NAND gate: AND gate+ NOT gate ( AND gate এর পরে একটি NOT gate যুক্ত করে ন্যান্ড গেইট বানানো হয়) AND gate এ যে আউটপুট পাব,NAND ( ন্যান্ড) gate এ তার বিপরীত রেজাল্ট পাব। ট্রুথ টেবিল দেখে ক্লিয়ার হয়ে নেন

X-OR gate: এটি একটি বিশেষ ধরনেই OR gate. OR gate এ যে কোন একটি ইনপুট 1 হলে আউটপুট 1, এক্স-অর গেইটও OR gate এর মতই। তবে OR gate এ যেমন দুটো ইনপুট 1 হলে আউটপুট 1 হয়,X-OR gate এ তা হবে না। একই জাতীয় ইনপুট হলে আউটপুট 0 হবে। ট্রুথ টেবিল দেখুন

X-NOR gate: X-OR gate+NOT gate এক্স অর গেইটের আউটপুটকে নট গেইটে ইনপুট করলে, আউটপুট গুলো উল্টে যাবে। ট্রুথ টেবিল দেখুন।

Buffer gate: বাফার গেইট নট গেইটের মত এক ইনপুট বিশিষ্ট গেইট।নট গেইট যেখানে signal কে উল্টিয়ে দেয়( inverse), বাফার গেইট সেখানে signal কে বিবর্ধিত ( amplifier) করে। অর্থাৎ, ইনপুট 1 হলে আউটপুট 1 ই হবে।

ভুলত্রুটি হলে ক্ষমাসুন্দর দৃষ্টিতে দেখবেন।

আরও পড়ুনঃ 

১. কম্পিউটার ও তথ্যপ্রযুক্তির উপর ১২৫ টি প্রশ্ন ও উত্তর
২. তথ্যপ্রযুক্তির বিখ্যাত প্রতিষ্ঠান সমূহের প্রতিষ্ঠাতার নাম ও সাল
৩. The Daily Star Editorial অনুবাদ : পর্ব- ১৪

ফেইসবুকে আপডেট পেতে আমাদের অফিসিয়াল পেইজ ও অফিসিয়াল গ্রুপের সাথে যুক্ত থাকুন। ইউটিউবে পড়াশুনার ভিডিও পেতে আমাদের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন।

আপনার টাইমলাইনে শেয়ার করতে ফেসবুক আইকনে ক্লিক করুন-