প্রাচীন ভারতে সাম্রাজ্য : সেন বংশ

প্রাচীন ভারতে সাম্রাজ্য : সেন বংশ
Content Protection by DMCA.com

প্রাচীন ভারতে সাম্রাজ্য : সেন বংশ

সেন বংশ

 

হেমন্ত সেন:
সামন্ত সেন কর্ণাট থেকে বৃদ্ধ বয়সে বাংলায় আসেন। তিনি রাঢ় অঞ্চলের গঙ্গা নদীর তীরে বসতি স্থাপন করেন।বাংলায় সেন বংশের প্রতিষ্ঠাতা সামন্ত সেন হলেও রাজ্য স্থাপন না করায় সেন বংশের প্রথম রাজার মর্যাদা পায় তার ছেলে হেমন্ত সেন।

বিজয় সেন (১০৯৮ – ১১৬০ খ্রিস্টাব্দ):
সেন বংশের শ্রেষ্ঠ রাজা বিজয় সেন। বিজয় সেন বাংলাকে সর্বপ্রথম একক শাসনাধীনে আনয়ন করেন। তিনি ত্রিবেণীর নিকঠ স্বীয় নামানুসালে ‘বিজয়পুর’ নামে রাজধানী স্থাপন করেন। তাঁর দ্বিতীয় রাজধানী ছিল বিক্রমপুর (বর্তমান মুন্সীগঞ্জ জেলার রামপাল স্থানে)।

বল্লাল সেন (১১৬০ – ১১৭৮ খ্রিস্টাব্দ): 
বিজয় সেনের পুত্র বল্লাল সেন ছিলেন বিদ্বান ও বিদ্যোৎসাহী। তিনি ‘দানসাগর’ নামক স্মৃতিময় গ্রন্থ এবং ‘অদ্ভুত সাগর’ নামক জ্যোতিষ গ্রন্থ রচনা করেন। বল্লাল সেন বাংলায় কৌলিন্য প্রথা প্রবর্তন করেন। এটি হল ব্রাহ্মণ,বৈদ্য ও কায়স্থ এই তিন শ্রেনির মিশ্রন।

লক্ষণ সেন (১১৭৮ – ১২০৬ খ্রিস্টাব্দ):
সেন বংশের শেষ রাজা লক্ষণ সেন, পিতার মৃত্যুর পর সিংহাসনে আরোহণ করেন। তিনি ছিলেন বাংলার শেষ হিন্দু রাজা। ১২০৪ সালে ইখতিয়ার উদ্দিন মোহাম্মদ বখতিয়ার খলজি নদীয়ার বুড়ো রাজা লক্ষন সেনকে পরাজিত করলে সেন বংশের পতন ঘটে। সেন বংশের রাজারা ছিলেন হিন্দু ধর্মাবলম্বী। গৌড়েশ্বর উপাধি লক্ষণ সেনের।

প্রাচীন ভারতে সাম্রাজ্য : সেন বংশ (প্রশ্নোত্তর)

১. বাংলার শেষ হিন্দু রাজা কে ছিলেন?

ক) বিজয় সেন
খ) লক্ষণ সেন
গ) হেমন্ত সেন
ঘ) বল্লাল সেন

উত্তরঃ খ) লক্ষণ সেন

২. সেন রাজাদের ধর্ম ছিল-

ক) ব্রাহ্ম
খ) বৌদ্ধ
গ) জৈন
ঘ) হিন্দু

উত্তরঃ ঘ) হিন্দু

৩. প্রাচীন বাংলার শাসক পাল ও সেনরা যথাক্রমে কোন ধর্মানুসারী ছিলেন?

ক) বৌদ্ধ ও হিন্দু
খ) জৈন ও হিন্দু
গ) হিন্দু ও মহাযান বৌদ্ধ
ঘ) বৌদ্ধ ও জৈন

উত্তরঃ ক) বৌদ্ধ ও হিন্দু

 

আরোও পড়ুনঃ

প্রাচীন ভারতে সাম্রাজ্য : পাল বংশ
প্রাচীন ভারতে সাম্রাজ্য : গৌড় শাসন
প্রাচীন ভারতে সাম্রাজ্য : গুপ্ত যুগ
প্রাচীন ভারতে সাম্রাজ্য : মৌর্য যুগ
প্রাচীন যুগে বাংলা : বাংলার প্রাচীন জনপদ
প্রাচীন যুগে বাংলা : বাঙালি জাতির উদ্ভব ও বিকাশ

ফেইসবুকে আপডেট পেতে আমাদের অফিসিয়াল পেইজ ও অফিসিয়াল গ্রুপের সাথে যুক্ত থাকুন। ইউটিউবে পড়াশুনার ভিডিও পেতে আমাদের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন।