ইংরেজি সাহিত্য: কীভাবে পড়বেন এবং কতটুকু পড়বেন

ইংরেজি সাহিত্য: কীভাবে পড়বেন এবং কতটুকু পড়বেন
Content Protection by DMCA.com

ইংরেজি সাহিত্য কিভাবে পড়বেন এবং কতটুকু পড়বেন

রবীন্দ্রনাথ বলেছিলেন, একের সহিত অন্যের মিলনকে সাহিত্য বলে। কিন্তু আমরা একের সহিত অন্যকে মিলানো বাদ দিয়ে গুলিয়ে ফেলি। কেউ পিথাগোরাসকেও ঔপন্যাসিক বলে ফেলি। কারন সাহিত্য সৃষ্টির চেয়ে মনে রাখা কঠিন। এটা আমাদের ভাষ্য। বাংলা সাহিত্যই মনে রাখতে অবস্থা খারাপ। আর ইংরেজি তো কথাই নেই। দেখলেই জ্বর আসে। এর কারন তিনটি-

ক) ইংরেজি সাহিত্যের পরিধি অনেক বড়।

খ) বেশির ভাগ পরীক্ষার্থী ইংরেজি সাহিত্যের শিক্ষার্থী নয়। হলেও খুব বেশি গল্প, উপন্যাস, কবিতা, প্রবন্ধ পড়ার সুযোগ ও সময় পান না।
গ) অনেকেই জীবনে ইংরেজি সাহিত্য নিজ উদ্যোগে পড়েনি। এখন চাপে পড়ে পড়ছে। তাই অসুবিধা হচ্ছে। তাহলে উপায়? আছে। ১৫ তে ১৫ পাওয়ার টার্গেট নিয়ে পড়া যাবে না। আপনি পাবেনও না। টার্গেট থাকবে ১০ থেকে ১৩ আর একটা কথা মনে গেঁথে নিবেন, প্রিলিমিনারি পাস করার জন্য সাহিত্য পড়ছেন; ওস্তাদ হওয়ার জন্য নয়।

 

তাহলে আপনাকে সাহিত্য এর যে বিষয়গুলো পড়তে হবে…

ক) Time frame of important periods (7/8)
খ) Important books and authors’ name
গ) Important characters (বাছাই করে)
ঘ) Title of writers
ঙ) Maxim or Quotation
চ) Literary Terms
ছ) Previous questions (বিসিএস এবং যে কোন পরীক্ষার প্রশ্ন। কারন গুরুত্বপূর্ণ না হলে পরীক্ষায় আসতো না।)
জ) Some important writers. নিচে তাদের নাম দেয়া হলো।

  • C. Chaucer
  • C. Marlowe
  • William Shakespeare
  • William Wordsworth
  • John Milton
  • John Keats
  • S. T. Coleridge
  • W. S. Maugham
  • Charles Dickens
  • Robert Browning
  • Ernest Hemingway
  • Jonathan Swift
  • P. B. Shelly
  • Edmund Spencer
  • O’ Henry
  • Bertrand Russell
  • Jane Austen
  • H. G. Wells
  • G. B. Shaw
  • Alfred Tennyson
  • William Blake
  • W. B. Yeats
  • T. S. Eliot
  • E. M. Foster
  • Sir Walter Scott

আমি পরামর্শ দিব ইংরেজি সাহিত্য যুগভিত্তিক না পড়ে গুরুত্বপূর্ণ লেখকভিত্তিক পড়তে। কারন প্রশ্ন হয় লেখক ধরে; যুগ ধরে নয়। যেমন- শেক্সপিয়ার থেকে প্রশ্ন আসবেই। তাহলে আপনি এটা আগে পড়বেন নাকি এ্যাংলো স্যাক্সন যুগ আগে পড়বেন। ৩৬তম বিসিএস প্রিলিমিনারি পরীক্ষায় শুধু William Wordsworth থেকেই আসছে তিনটা প্রশ্ন। তাই লেখককে আগে গুরুত্ব দিতে হবে। এরপর যদি পরীক্ষা দেরিতে হয় বা আপনার সময় থাকে তবে আরো কিছু পড়ে নিবেন। বেশি পড়লে ক্ষতি নেই। তবে কম গুরুত্বহীনকে বেশি বা আগে পড়লে সমস্যা হতেও পারে ইংরেজি সাহিত্যের ক্ষেত্রে। ইংরেজি সাহিত্য পড়ার জন্য আপনি একটা গাইড পড়লেই হবে তা হলো ‘Radical English Literature’.

বাংলা ভাষায়ও আছে কিছু জিনিস। সাহিত্যটা বোঝার চেয়ে মনে রাখা জরুরী। আর লিখিত ও ভাইভায় (যদি ইংরেজি সাহিত্যের শিক্ষার্থী না হন) এর কোন প্রয়োজন নেই। সুতরাং এত চাপ নেওয়ারও কিছু নেই।

উপরিউক্ত পঁচিশ জন কবি ও লেখক সম্পর্কে ভাল করে পড়বেন। আর বাকীদের হালকা দেখলেন। হয়ে যাবে। আর দুই তিন দিনেই সব শেষ করতে যাবেন না। অল্প অল্প করে আগাবেন। যেমন- একদিনে ৩ জন লেখক ভাল করে পড়লেন।
একটা কথা মনে রাখবেন, বিসিএস ক্যাডার যারা হন তারা সব কিছু জানেন এমন কথা নেই। তবে বিসিএস ক্যাডার হতে যা প্রয়োজন তা জানেন। তাই তারা সফল। পড়াশুনার প্রতিটি ধাপে কৌশল অবলম্বন করুন। পরিশ্রম করুন সঠিকভাবে। নিশ্চয়ই দেখা হবে বিজয়ে।

ধন্যবাদ সবাইকে।
শাহ্ মো: সজীব
বিসিএস (প্রশাসন)

 

আরোও পড়ুনঃ English Literature MCQ Questions & Answers [Part-1]

ফেইসবুকে আপডেট পেতে আমাদের অফিসিয়াল পেইজ ও অফিসিয়াল গ্রুপের সাথে যুক্ত থাকুন। ইউটিউবে পড়াশুনার ভিডিও পেতে আমাদের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন।